Header Ads

Breaking News

পারফেক্ট ম্যাচ

শ্রিয়া সরকার

"শোনো, ওনারা আসছেন, কোনো কথা তোমার অপছন্দ হতেই পারে কিন্তু তাই বলে ওঁদের অসম্মান করে কিছু বলবে না কিন্তু"


"উফ মা, তুমি কি আমাকে এত অসভ্য অভদ্র ভাবো! আমি একটা বড় কোম্পানির এইচ আর ডিপার্টমেন্টে কাজ করি, লোকের সাথে ঠিক ঠাক কথা বলাটাই আমার কাজ |"


"ওই সব বড় বড় কথা আমাকে বলতে এসো না, যা বললাম মনে থাকে যেন " নীলিমা মেয়ের দিকে একটা কঠিন চাহনি দিয়ে পাশের ঘরে চলে গেলেন |


খবরের কাগজে পাত্র চাই কলামে বিজ্ঞাপন আত্রেয়ীর চূড়ান্ত না-পসন্দ, তাই বাধ্য হয়ে ভারত ম্যাট্রিমনি | আজই প্রথম ক্যান্ডিডেটের বাবা মা দেখতে আসবেন | সেই প্রসঙ্গেই নীলিমার সতর্কবাণী |


যথাসময়ে সম্ভাব্য হবু শ্বশুর শাশুড়ির আগমন ও আলাপ পরিচয় বিনিময় | পাত্র কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়ার, আই টি কোম্পানিতে চাকরির সুবাদে বাঙ্গালোরে থাকে | রোজগারের অঙ্ক বেশ বড় | দক্ষিণ কলকাতায় নিজেদের দোতলা বাড়ি, গাড়ি | আত্রেয়ী আড়চোখে নিজের মা- বাবার বিগলিত মুখচ্ছবি স্টাডি করে নিল একবার |


"আপনার মেয়েকে আমাদের কিন্তু বেশ পছন্দ হয়েছে | ওরা একটু ভিডিও কল টল করে একে অপরের মতামত জেনে নিক" 


হবু শ্বশুরের কথার ল্যাজ ধরে হবু শাশুড়ি বললেন - "ছেলেটা একা থাকে, মনটা খুঁতখুঁত করে জানেন তো | একমাত্র ছেলে আমার, রান্নাবান্না, ঘরদোর গুছিয়ে রাখার কাজ এ সব তো কোনোদিন করতে দেই নি, বেচারা নাজেহাল হয়ে যাচ্ছে পুরো | বিয়ে করে বউ নিয়ে গেলে আমি একটু স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলতে পারি, এভাবে হাত পুড়িয়ে খাচ্ছে ছেলেটা, ভাবুন একবার মায়ের মনে কেমন হয়! "


শঙ্কিত নীলিমা মেয়ের দিকে তাকিয়ে কিছু বলার আগেই আত্রেয়ী হাসিমুখে হাত বাড়িয়েছে -" আন্টি, আপনার ফোনটা একবার দেবেন প্লিজ "


দু মিনিটের মধ্যে খুটখাট সেরে ফের একই রকম হাসিমুখে এগিয়ে দিয়েছে "বেসিকটা আমি এন্ট্রি করে দিয়েছি, বাকি পার্সোনাল ডিটেইলস একটু ভরে নিলেই ব্যাস্! একদম নিশ্চিন্ত |" 


"এটা কি?" ভদ্রমহিলা দৃশ্যতই বেশ কনফিউজড |


বাবা ও মায়ের যুগপৎ ভ্রুকুটি অগ্রাহ্য করে আত্রেয়ী সোৎসাহে এগিয়ে বসলো আরেকটু - "বুক মাই বাই ডট কম! নাম শোনেন নি বুঝি? দুর্দান্ত ওয়েবসাইট, অ্যাপও আছে | বাই বুঝলেন না? মেইড, পাতি বাংলায় কাজের লোক বলি না, সেইই | আর বাঙ্গালোরে তো এদের সার্ভিস একদম অ্যাওয়ার্ড পাওয়া, রান্না, ঠিকে, হাউসকীপিং সঅব পাবেন |" 


ঘরের বাকি চারজনই জুলজুল করে চেয়ে আছে দেখে আত্রেয়ী সোফা থেকে উঠে পড়লো -" আমি আসি তাহলে? অফিস থেকে তাড়াতাড়ি বেরিয়েছিলাম কিনা, কটা কাজ বাকি আছে | আর হ্যাঁ আন্টি, ওই ভারত ম্যাট্রিমনির প্রোফাইলটা বরং ডিলিটই করে দেবেন, বুক মাই বাই একদম পারফেক্ট ম্যাচ দিয়ে দেবে |" 


|| সমাপ্ত ||

কোন মন্তব্য নেই